ঘরে বসে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার নিয়ম (নতুন পদ্ধতি)

তথ্য প্রযুক্তির উন্নতির ছোঁয়া এবং ডিজিটাল বাংলাদেশ হওয়ার কারণে বর্তমানে এখন আর আপনাকে স্থানীয় সরকার বিভাগ পৌরসভা ইউনিয়ন পরিষদ অথবা সিটি কর্পোরেশনের অফিসে গিয়ে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে থেকে জন্ম নিবন্ধনের তথ্য অনুসন্ধান করার জরুরি নয়। আপনি চাইলে ঘরে বসে থেকে আপনার মোবাইল অথবা কম্পিউটার যে কোনো ইলেকট্রনিক ডিভাইসের মাধ্যমে একটি ব্রাউজার ইন্টারনেট কানেক্টেড করে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করতে পারবেন।

সুতরাং আপনারা যারা জন্ম নিবন্ধনের জন্য আবেদন করেছেন কিন্তু এখন পর্যন্ত তার কোনো ফলাফল পাননি তাদের জন্যই আজকে ঘরে বসে থেকে কিভাবে জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই করা সম্ভব তা নিয়ে আজকের এই আর্টিকেলটি সাজানো হয়েছে। বাংলাদেশের প্রতিটি নাগরিকের জন্মনিবন্ধন সনদ থাকা বাধ্যতামূলক করে দিয়েছে বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন। একটি দেশের সুনাগরিক হওয়ার কারণে আপনার অবশ্যই একটি জন্মনিবন্ধন সনদ থাকা জরুরি।

যেহেতু আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদ রয়েছে তখন এ জন্ম নিবন্ধন সনদ সম্পর্কে যে সকল তথ্য রয়েছে তা সম্পর্কে জানতে আপনার মন চাইবে। আপনার জন্ম নিবন্ধন সনদের তথ্য যাচাইয়ের জন্য আপনাকে নিশ্চিত হতে হবে এবং আপনি আমাদের এই নিচের অংশে যে আলোচনা করা হয়েছে তা অনুসরন করে খুব সহজেই জন্ম নিবন্ধনের তথ্য ঘরে বসে থেকে যাচাই করতে পারবেন।

ঘরে বসে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার নিয়ম

আপনারা ইতিমধ্যে উপলব্ধি করতে পেরেছেন যে জন্ম নিবন্ধন সনদ আপনার প্রাত্যহিক জীবনে কতটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। যার কারণে এই ডকুমেন্টটি আপনার সংগ্রহে রাখা অত্যন্ত জরুরী। আপনার যদি জন্ম নিবন্ধন থেকে থাকে এবং কোন কারণে আপনি যদি তা তথ্য বের করতে চান তাহলে আপনারা অবশ্যই আমাদের নিচের অংশে যে তথ্যগুলো দেওয়া হয়েছে তা অনুসরণ করুন। আমরা আপনাদের নিশ্চয়তা দিচ্ছি যে আপনি ঘরে বসে থেকে আপনার জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই করতে পারবেন।

হারিয়ে যাওয়া জন্ম নিবন্ধন ডাউনলোড করুন

জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই এর ক্ষেত্রে আপনাদের জন্য আমাদের বিশেষ নির্দেশনা অনলাইন থেকে জন্ম নিবন্ধন যাচাই করার জন্য আপনাকে অবশ্যই আপনার জন্ম নিবন্ধন নাম্বার ও জন্মতারিখ জানা অত্যন্ত জরুরী।

  • জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই করার জন্য প্রথমে আপনাকে অফিশিয়াল ওয়েবসাইট everify।bdris।gov।bd এই লিঙ্কে প্রবেশ করতে হবে।
  • অফিশিয়াল হোম পেজে প্রবেশ করার পর আপনি বিভিন্ন ক্যাটাগরির দেখতে পাবেন সেখান থেকে অবশ্যই জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই অপশনে ক্লিক করুন।
  • জন্ম নিবন্ধন নম্বর লেখার একটি ফাঁকা জায়গা দেখতে পাবেন। উক্ত স্থানে যথাযথভাবে আপনার 17 ডিজিটের যে জন্ম নিবন্ধন নম্বর রয়েছে তা লিখুন।
  • নিচের অংশে জন্ম নিবন্ধন অনুসারে আপনার জন্ম তারিখ দেওয়া হয়েছে তা যথাযথভাবে লিখুন।
  • সিকিউরিটি প্রশ্নের উত্তর দিন অর্থাৎ যে ক্যাপচা কোড দেওয়া রয়েছে তা যথাযথভাবে লিখুন।
  • পরিশেষে আপনি আপনার জন্ম নিবন্ধন এর সকল তথ্য দেখতে পারবেন।

জন্ম তারিখ দিয়ে জন্ম নিবন্ধন যাচাই

জন্ম নিবন্ধনের তথ্য যাচাইয়ের মাধ্যমে আপনি আপনার বর্তমান অবস্থা যাচাইয়ের পাশাপাশি যেকোনো ধরনের তথ্য পরিবর্তন করার সুযোগ পাবেন। সুতরাং আমরা আশা করছি যে আমাদের দেওয়া তথ্য গুলোর মাধ্যমে আপনি সহজেই জন্ম নিবন্ধন তথ্য যাচাই করতে পেরেছেন।