দারাজ থেকে আয় ২০২২ দারাজ অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে আয় করুন

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে আমাদের সকলের ধারণা রয়েছে বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় প্রথম ই-কমার্স ওয়েবসাইট দারাজ এর মাধ্যমে এখন আপনি চাইলেই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা আয় করতে পারবেন। আজকের আর্টিকেলে আমরা আপনার দেখাবো দারাজ এর ওয়েবসাইট ব্যবহার করে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায়।

আপনি চাইলে দারাজের পণ্য আপনার ব্লগ ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল এগুলোর মাধ্যমে প্রচারণা চালিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তবে এক্ষেত্রে আপনাকে বিশেষ নির্দেশনা অনুসরণ করতে হবে যা আমরা ধারাবাহিকভাবে এখানে আলোচনা করেছি।

দারাজ থেকে আয় ২০২২

বাংলাদেশের সর্বপ্রথম ও সবচেয়ে জনপ্রিয় ই-কমার্স ওয়েবসাইট দারাজ ।2011 সালে যাত্রা শুরু করা এই ইকমার্স ওয়েবসাইট সম্প্রতিককালে ব্যাপক জনপ্রিয়তা লাভ করেছে এবং এই ওয়েবসাইটের মাধ্যমে এখন আমরা ঘরে বসে থেকে অনলাইনের মাধ্যমে যেকোনো ধরনের প্রোডাক্ট কিনতে পারছি।

এখন আপনাদের মাধ্যমিক প্রশ্ন জাগতেই পারে দারাজ ওয়েবসাইট থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায় সাধারণত এই কমার্স ওয়েবসাইট থেকে আপনি দুইটি পদ্ধতিতে টাকা ইনকাম করতে পারেন। প্রথমত এফিলিয়েট মার্কেটিং অর্থাৎ দারাজের প্রোডাক্টগুলো গ্রাহকদের মাঝে প্রচারণা চালিয়ে তা বিক্রি করে আর দ্বিতীয়তঃ দারাজের পার্ট টাইম জব রয়েছে সেখানে নিজেকে নিযুক্ত করে টাকা ইনকাম। আমরা আলোচনার এই অংশের অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং ও দারাজের অনলাইন জব সম্পর্কে আলোচনা করেছি।

দারাজ থেকে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকা ইনকাম

আমরা ইতিমধ্যে আপনাদের জানিয়েছে যে জনপ্রিয় ই-কমার্স ওয়েবসাইট দারাজ এর মাধ্যমে এফিলিয়েট মার্কেটিং করা সম্ভব। তবে প্রথমে আপনাকে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে।

দারাজ অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম কী?

50 হাজারেরও বেশি প্রোডাক্ট নিয়ে জনপ্রিয় ই-কমার্স ওয়েবসাইট দারাজের দ্বারা জনগণের সেবা করে চলেছে। আপনি চাইলে দারাজের এনলিস্টেড প্রোডাক্টগুলো সেল করে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন যা দ্বারা অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম নামে পরিচিত।

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং হচ্ছে অনলাইন প্লাটফর্ম এ কোন কোম্পানির প্রোডাক্ট প্রচারণা চালিয়ে বিক্রিতে সহায়তা করা অর্থাৎ মনে করুন তাদের যে সকল প্রোডাক্ট রয়েছে সে সকল প্রোডাক্ট এর নাম ও রিভিউ লিখে আপনি যদি আপনার ওয়েব সাইট অথবা ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশ করেন এবং কোন ভিউয়ার্স অথবা ভিজিটর যদি আপনার ব্লগ পোস্ট টি পড়ে পণ্যটি কিনে তা হলে পণ্যটি বিক্রি করার ফলে যে লভ্যাংশ হবে সেখান থেকে আপনাকে 5% দেওয়া হবে।

এখন আপনাদের মাঝে প্রশ্ন রয়েছে যার দ্বারা অ্যাপলেট মার্কেটিং করে কত টাকা আয় করা সম্ভব। সাধারণত অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের ইনকাম আপনার পণ্য রেলিংয়ের ওপর নির্ভর করে এবং পণ্যটি কোন ক্যাটাগরির মধ্যে তার ওপর নির্ভর করে দারাজ কোম্পানির সাধারণত তাদের ফ্যাশন প্রোডাক্ট গুলোর জন্য 12% সর্বোচ্চ কমিশন দিয়ে থাকে।

উদাহরণস্বরূপ বলা যায় যে আপনি যদি 10 হাজার টাকা মূল্যের কোন ফ্যাশন প্রোডাক্ট দারাজ এর মাধ্যমে বিক্রি করে থাকেন তাহলে আপনি কমিশন 600 টাকা পাবেন।

দারাজ থেকে আয় করতে কী লাগবে?

দারাজ থেকে ইনকাম করার ক্ষেত্রে আপনাকে প্রথমেই বেশ কিছু দরকারি জিনিস প্রয়োজন এগুলো ছাড়া কোনভাবেই টাকা ইনকাম করা সম্ভব নয়।

  • নিজস্ব ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল অথবা ফেসবুক পেজ যার মাধ্যমে পণ্যের প্রচারণা চালানো যাবে।
  • এফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে সাধারণ ধারণা থাকা প্রয়োজন।
  • একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট যার মাধ্যমে আপনি টাকা উইথড্র করতে পারবেন।

দারাজ অ্যাফিলিয়েট একাউন্ট খোলার নিয়ম

আপনি যদি দারাজ থেকে ইনকাম করার জন্য প্রস্তুত হন তাহলে এখন আপনাকে দারাজ আফিলিয়েট একাউন্ট খুলতে হবে। নিচে আমরা দ্বারা আফিলিয়েট একাউন্ট খোলার নির্দেশনা দিয়েছি যা অনুসরণ করুন এবং সহজে অ্যাকাউন্ট খুলে ফেলুন।

Screenshot-2022-02-16-at-12-20-37-PM


Screenshot-2022-02-16-at-12-21-23-PM

  • অ্যাফিলিয়েট একাউন্ট খোলার লক্ষ্যে প্রথমে আপনাকে এই https://www.daraz.com.bd/daraz-affiliate-program/ ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে।
  • Sign Up বাটনে ক্লিক করুন এবং পরবর্তী ধাপ এ যান।
  • পরবর্তী ধাপে আপনাকে একটি ফর্ম দেওয়া হবে যেখানে আপনাকে কিছু তথ্য প্রদান করতে হবে।
  • উক্ত ফর্মে আপনার ইমেইল আইডি আপনার ওয়েব সাইট অথবা ইউটিউব চ্যানেলে মাসিক ভিউয়ার্স অথবা ভিজিটর আপনার ব্যবসার ধরন ইত্যাদি তথ্য যথাযথভাবে পূরণ করুন।
  • পরবর্তী ধাপে আপনাকে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নাম্বার যথাযথভাবে প্রদান করতে হবে।
  • ট্যাক্স ও ভ্যাট সম্পর্কে তথ্য গুলো লিখুন।
  • এরপর দারাজ বায়ার একাউন্টের জন্য আপনার থেকে তথ্য চাওয়া হবে।
  • দারাজ বায়ার একাউন্টের ধরণ, ব্যবসার নাম, ফোন নাম্বার, ন্যাশনাল রেজিস্ট্রেশন নাম্বার বা সরকার কতৃক ইস্যু করা আইডি নাম্বার, পোস্টাল এড্রেস, ইত্যাদি তথ্য সঠিকভাবে প্রদান করুন।
  • দারাজ অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম এর সাথে একমত হওয়ার জন্য তাদের সকল বিধিনিষেধ মেনে YES অপশনে ক্লিক করুন।
  • সাবমিট করা মাত্র আপনার দ্বারা অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর অ্যাকাউন্ট খোলা সম্পন্ন হয়েছে।

দারাজ থেকে আয় করার নিয়ম

দারাজ থেকে ইনকাম করার ক্ষেত্রে আপনাকে প্রথমে একটি আফিলিয়েট মারকেটিং একাউন্ট খোলা জরুরি যা কিভাবে খুলবেন তা ওপরের অংশে আলোচনা করা হয়েছে।

  • যেহেতু আপনি দারাজ আফিলিয়েট অ্যাকাউন্ট খুলে ফেলেছেন তাহলে নিচের লিংকে ক্লিক করুন  partner.net.daraz.com  এখানে আপনাকে দারাজ আফিলিয়েট একাউন্টের ইমেইল ও পাসওয়ার্ড প্রদান করতে হবে।
  • ওয়েব পেজে প্রবেশ করার পর আপনাকে অ্যাফিলিয়েট ড্যাশবোর্ডে নিয়ে যাওয়া হবে।
  • এডমিট অপশনে ক্লিক করুন এবং যে ক্যাটাগরির পণ্য আপনি প্রচারণা চালাবেন তা নির্বাচন করুন।
  • পরবর্তীতে এডজাস্ট অপশনে ক্লিক করুন।
  • এরপর সার্চ ট্যাবে ক্লিক করুন Get URL অপশনটি থেকে আপনার পণ্যটি প্রচারণার জন্য লিংকটি কপি করুন এবং আপনার ওয়েবসাইট অথবা ইউটিউব চ্যানেলের ডেসক্রিপশন লিংক শেয়ার করুন।
  • আপনার লিঙ্কে যখন কোন ওয়েবসাইট অথবা ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে শেয়ার করা হবে যদি কোন ভিউয়ার্স অথবা ভিজিট আর তা দেখে আকর্ষিত হয়ে লিংকে প্রবেশ করে এবং পণ্যটি ক্রয় করতে আগ্রহী হয় তাহলে পণ্য বিক্রয় করার পর যে লাভ হবে সেখান থেকে আপনাকে 5 পার্সেন্ট প্রদান করা হবে।

দারাজে পার্ট টাইম জব করে ইনকাম

প্রতিবছর দারাজ এ কম্পানি 20 হাজারেরও বেশি কর্মী নিয়োগ প্রদান করে থাকেন। বিশেষ করে স্টুডেন্টদের জন্য সুযোগ সুবিধা রয়েছে কেননা আপনি এখানে 8 ঘন্টা পার্ট টাইম জব করে মাসে 14 হাজার টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তাই দারাজ কোম্পানির যখন কোন চাকরির নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে আপনার যদি সুযোগ থাকে তাহলে অবশ্যই সেখানে আবেদন করবেন।