পেওনিয়ার থেকে বিকাশে টাকা আনার নিয়ম

দেশের অসংখ্য ফ্রিল্যান্সারদের কথা মাথায় রেখে জনপ্রিয় মোবাইল ব্যাংকিং সেবা বিকাশ থেকে টাকা আনার নতুন ফিচার চালু হয়েছে। সাধারণত বিকাশ রেমিটেন্স অপশনের মাধ্যমে পেওনিয়ার একাউন্ট থেকে বিকাশ একাউন্টের মাধ্যমে সংযুক্ত করে বিকাশের মাধ্যমে টাকা দেশে আনা যাবে। আজকে আমরা আপনাদের দেখাব কিভাবে পেওনিয়ার থেকে বিকাশে টাকা আনা সম্ভব এবং তার বিস্তারিত সকল তথ্য।

পেওনিয়ার থেকে বিকাশে টাকা আনার সুবিধা

আলোচনার শুরুতেই আমরা আপনাদের জানাতে চাই যে পেওনার থেকে বিকাশে টাকা আনার বেশ কিছু সুবিধা রয়েছে ব্যাংকের মাধ্যমে বা কোন ধরনের এটিএম বুথ থেকে পেওনার থেকে টাকা না এনে কেন আপনি বিকাশ ব্যবহার করবেন তা আপনার কাছে একটি প্রশ্ন হয়ে দাঁড়াতে পারেতথ্য এ অবস্থায় আমরা আপনাদের জানাতে চাই যে

  1. পেওনার থেকে বিকাশে টাকা আসলে 2% ক্যাশব্যাক দেওয়া হবে যা পেওনার চার্জ হিসেবে কেটে নেওয়া হবে অর্থাৎ কোন ধরনের বাড়তি ফি লাগছে না আপনার টাকা ট্রান্সফার করে নিতে হবে। বিকাশ কর্তৃপক্ষ সীমিত সময়ের জন্য এই অফারটি চালু করেছে। ক্যাম্পের শেষ হওয়ার পর ক্যাশব্যাক অফার বন্ধ করে দেয়া হবে এবং আপনার পেওনার একাউন্ট থেকে ভ্যাট কাটা হবে।
  2. সর্বনিম্ন 1000 টাকা থেকে পেওনিয়ার থেকে বিকাশে টাকা আনা সম্ভব।
  3. ব্যাংক থেকে টাকা লেনদেনের ক্ষেত্রে সর্বনিম্ন 24 ঘন্টা সময় দরকার হয় কিন্তু আপনি যদি পেওনার থেকে বিকাশে টাকা পাঠাতে চান তাহলে মুহূর্তের মধ্যে অনলাইনের মাধ্যমে টাকা পৌঁছে যাবে আপনার বিকাশ একাউন্টে।
  4. গুরুত্বপূর্ণ সময়ে দ্রুত পেওনার থেকে বিকাশে টাকা আনার সুবিধা রয়েছে যে আপনি ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলনের সময় কার্ড জরুরি কিন্তু বিকাশের মাধ্যমে টাকা উত্তোলন করার সময় কোন ধরনের কার্ড জরুরী নয়।
  5. পেওনার থেকে কার্ডে ক্যাশ আউট এর চেয়ে বিকাশের ক্যাশ আউট ফ্রি তুলনামূলকভাবে অনেক কম।
  6. এখন অনেক ফ্রিলান্সারের মনে প্রশ্ন রয়েছে যে ইন্টারন্যাশনাল রেমিটেন্স এর ক্ষেত্রে কোন ধরনের লিমিট আছে কিনা? পেওনিয়ার থেকে বিকাশ বা অন্যান্য যে কোন মাধ্যমে টাকা আনার ক্ষেত্রে একটি নির্দিষ্ট লিমিট করে দেওয়া হয়েছে।
  7. যেমন একজন ব্যক্তি প্রতিদিন সর্বোচ্চ 10 বার ও 1,25000 টাকা দেশে পাঠাতে পারবে। মাসিক হিসেবে যা দাঁড়ায় প্রতি মাসে সর্বোচ্চ ৫০ বার ৪,৫০,০০০ টাকা প্রেরন করা যাবে।

পেওনিয়ার থেকে বিকাশে টাকা আনার নিয়ম

ওপরের অংশে আমরা পেওনার থেকে বিকাশে টাকা আনার সুবিধা আলোচনা করেছে এখন আমরা আপনাদের দেখাবো কিভাবে বিকাশে টাকা আনবেন তার সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা।

পেওনার একাউন্ট খুলতে পেওনার পরিচালিত রেজিস্ট্রেশন পেজে প্রবেশ করার লক্ষ্যে প্রথমেই আপনাকে বিকাশ অ্যাপ এ প্রবেশ করতে হবে আপনার ফোনে যদি বিকাশ অ্যাপ না থাকে তাহলে অবশ্যই গুগল প্লে স্টোর থেকে অ্যাপ ইন্সটল করুন।

Screenshot-2022-02-18-at-10-44-13-AM

রেজিস্ট্রেশন পেজে প্রবেশ করার পর Remittance > Payoneer > Create Payoneer Account with bKash অপশনে ক্লিক করুন।

পরবর্তী ধাপে আপনার কাছে ব্যক্তি একটি আবেদন ফরম রেজিস্ট্রেশন এর জন্য দেওয়া হবে উক্ত স্থানে আপনি প্রয়োজনীয় সকল তথ্য যথাযথভাবে পূরণ করুন মনে রাখবেন ভুল তথ্য প্রদান করলে আপনার রেজিস্ট্রেশন প্রক্রিয়া টি বাতিল করা হবে।

বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে পেওনার একাউন্ট খোলার ক্ষেত্রে সময় লাগবে 3 দিন এই 3 কর্মদিবসের মধ্যে আপনার অ্যাকাউন্টে রিভিউ করে রেজিস্ট্রেশন কনফার্ম করবেন।

আপনার পেওনার একাউন্ট খোলা সম্পূর্ণ হলে এবার আপনাকে পেওনার ও বিকাশ একাউন্টের মাধ্যমে সম্পর্ক স্থাপনের ক্ষেত্রে লিঙ্ক করতে হবে।

  • এ অবস্থায় প্রথমে আপনাকে বিকাশ অ্যাপ এ প্রবেশ করতে হবে এবং রেমিটেন্স অপশনের ট্যাব ইন করুন এবং পরবর্তী ধাপে পেওনার সিলেক্ট করুন।
  • পরবর্তী ধাপে লিংক মাই পেওনার একাউন্ট অপশন সিলেক্ট করুন।
  • মনে রাখবেন আপনার বিকাশ একাউন্টে যে নাম দিয়ে খোলা হয়েছে সে নাম ব্যবহার করে পেওনার একাউন্ট খুলতে হবে।
  • একাউন্ট লিংকিং এর সময়ে মোবাইলে আসা ওয়ান টাইম পাসওয়ার্ড যথাযথভাবে প্রদান করুন এবং ওই কোড অন্য কারো সাথে শেয়ার করা থেকে বিরত রাখুন।

উপরের উল্লেখিত প্রক্রিয়াগুলো যদি আপনি যথাযথভাবে অনুসরণ করেন তাহলে আপনার পেওনার একাউন্ট ও বিকাশ একাউন্টের মধ্যে লিংক তৈরী হয়ে গেছে একাউন্ট লিংকিং সম্পন্ন হলে তা নোটিফিকেশনের মাধ্যমে আপনার প্রোফাইলে দেওয়া হবে। এরপর থেকে আপনি বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে পেওনারের মা ফরেন কারেন্সি আনতে পারবেন।

Screenshot-2022-02-18-at-10-44-22-AM

  • বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে পেওনার থেকে টাকা আনতে বিকাশ অ্যাপ এ রেমিটেন্স সেকশনে প্রবেশ করে ফরেন কারেন্সি বিকাশের যুক্ত করতে চান তা নির্বাচন করুন।
  • এরপর উইথড্রয়াল এর পরিমাণ ইনপুট করুন অর্থাৎ আপনি যে পরিমাণ টাকা বের করতে চান তা লিখুন এবং প্রসিড অপশনে ক্লিক করুন।
  • পরবর্তী ধাপে বাংলাদেশি টাকায় কনভার্ট করা টাকার পরিমাণ আপনি দেখতে পারবেন পেওনার থেকে আসা অ্যামাউন্ট টাকায় কনভার্ট করতে ট্যাপ টু কনটিনিউ অপশনে ক্লিক করুন।
  • এরপর উইথড্রয়াল রিকোয়েস্ট গ্রহণ করা হবে এবং আপনাকে একটি নোটিশ প্রদান করা হবে।
  • এভাবে আপনি আপনার উইথড্রয়াল প্রসেস সম্পন্ন করেছেন।

নিঃসন্দেহে বিকাশ মোবাইল ব্যাংকিং সেবার দারুন একটি প্রচেষ্টা। দেশের ফ্রিল্যান্সারদের সাহায্য করার জন্য দীর্ঘদিন যাবত আমাদের দেশের ফ্রিল্যান্সাররা বাইরের টাকা দেশে আনার ক্ষেত্রে সমস্যায় ভুগছিলেন।

অবশেষে সে সমস্যার সমাধান হতে চলেছে পে-অর্ডার থেকে বিকাশে টাকা আনার মাধ্যমে তাই আপনারা যারা বিদেশ থেকে রেমিটেন্স দেশে আন্দোলন করতে চান তারা অবশ্যই আমাদের দেওয়া নির্দেশনা মেনে চলবেন এবং আপনার টাকা কনভার্ট করবেন।