ব্র্যান্ড ক্রিকেট খেলে আফগানিস্তানকে হারাতে চায় বাংলাদেশ

আসন্ন তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজে আফগানিস্তানকে  সহজ পরিকল্পনায় হারাতে চায় বাংলাদেশ। রোববার (২০ ফেব্রুয়ারি) চট্টগ্রামের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়ার আগে এই কথা জানিয়েছেন টাইগার অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান মিরাজ।

 

তিনি বলেন, ‘আফগানিস্তানের বিপক্ষে আমাদের একটি সহজ পরিকল্পনা আছে। আমরা সেটি অনুসরণ করব। আশা করি, এর মাধ্যমেই তাদের সিরিজে হারানো সম্ভব হবে।’

মিরাজের মতে, সহজ পরিকল্পনার অর্থ হলো দীর্ঘদিন যাবত অনুসরণ করে আসা নিজেদের ব্র্যান্ড ক্রিকেট খেলা।

 

ওয়ানডে ফরম্যাটে সবসময়ই শক্তিশালী দল বাংলাদেশ। তাই আফগানিস্তানের বিপক্ষে ফেভারিট হিসেবে খেলতে নামবে তারা।

 

মিরাজ বলেন, ‘ওয়ানডে ক্রিকেটে আমরা সবসময়ই ভালো। এই ফরম্যাটের জন্য ক্রিকেটের একটি ব্র্যান্ড সেট করেছি। সন্দেহ নেই, আবার এটি অনুসরণ করার চেষ্টা করব। তবে বলছি না, সিরিজের সব ম্যাচই জিতব। আমাদের প্রথম টার্গেট সিরিজ জয়। পরে দেখা যাবে কি হয়।’

 

আইসিসি ওয়ানডে সুপার লিগে এখন পর্যন্ত চারটি সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। ১২টি ম্যাচের মধ্য  আটটিতে জিতেছে তারা।  বর্তমানে ৮০  পয়েন্ট নিয়ে   ইংল্যান্ডের পর দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে টাইগাররা। 

 

জিম্বাবুয়ে ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে অ্যাওয়েতে দুটি সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। জিম্বাবুয়েকে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজে হোয়াইটওয়াশ করে তারা। তবে নিউজিল্যান্ডে ধবলধোলাই হয় মিরাজরা। 

 

ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে হোয়াইটওয়াশ হয় বাংলাদেশ। কিন্তু শ্রীলংকাকে ২-১ ব্যবানে হারায় তারা। আফগানিস্তানের বিপক্ষে সিরিজটিও আইসিসি ওয়ানডে সুপার লিগের অংশ। এতে সফরকারীদের বাংলাওয়াশ করতে পারলে ২০২৩ বিশ্বকাপে সরাসরি খেলার পথে আরও একধাপ এগিয়ে যাবে স্বাগতিকরা।

 

ওয়ানডে ক্রিকেটে বাংলাদেশ দুর্দান্ত দল। তবে আফগানদের হারানো খুব একটা সহজ হবে না। দুই দলের হেড টু হেড লড়াইয়ে আট ম্যাচে বাংলাদেশ ৫-৩ ব্যবধানে এগিয়ে আছে। 

 

সবশেষ দুটি ম্যাচও জিতেছে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। এর মধ্যে ২০১৮ সালের এশিয়া কাপে ৩ রানে এবং ২০১৯ বিশ্বকাপে ৬২ রানে জয় পায় তারা। তবে আফগানদের কাছে হারলে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়তে হয় বাংলাদেশকে।

 

আইসিসি ওয়ানডে সুপার লিগে এখনও অপরাজিত আফগানিস্তান। ৬ ম্যাচ খেলে সবকটিতেই জিতেছে তারা। তবে আফগানদের সিরিজগুলো ছিল র‌্যাংকিংয়ের  তলানির দল আয়ারল্যান্ড ও নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে। পয়েন্ট টেবিলের ষষ্ঠ স্থানে রয়েছে রশিদ-নবীরা। তবে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ জয় অনেক এগিয়ে নিবে তাদের। 

 

এসব কারণে আফগান সিরিজটি টাইগারদের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে  করেন মিরাজ। সব বিভাগেই জ্বলে উঠতে চান তিনি।

 

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে সিরিজের তিনটি ওয়ানডে হবে আগামী ২৩, ২৫ ও ২৮ ফেব্রুয়ারি। সব ম্যাচ শুরু সকাল ১১টায়। এরপর দুই ম্যাচ টি-টোয়েন্টি খেলার জন্য ঢাকায় ফিরবে বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান। মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে টি-টোয়েন্টি দুটি হবে ৩ ও ৫ মার্চ। ম্যাচগুলো শুরু হবে বিকেল ৩টায়।