আইপিএল নিলামে কেন দল পেলেন না সাকিব?

By | March 9, 2022
আইপিএল নিলামের ফাঁকে স্টার স্পোর্টস-এ কথোপকথনে বিশ্লেষক ও সাবেক ভারতীয় ব্যাটসম্যান আকাশ চোপড়া তুলে ধরলেন সাকিব আল হাসানের দল না পাওয়ার কয়েকটি সম্ভাব্য কারণ।

 

“সাকিবের প্রাপ্যতা একটি ব্যাপার। কত সময় তাকে পাওয়া যাবে, এটা নিশ্চিত নয়। এটি বড় ফ্যাক্টর হতে পারে। আরেকটি ব্যাপার হলো, সে খুব ভালো অলরাউন্ডার হলেও আইপিএলে তার পরিসংখ্যান খুব সমৃদ্ধ নয়। ভালো পারফরম্যান্স আছে, কিন্তু তার রেকর্ড অসাধারণ। এবার বিপিএলে খুব ভালো করলেও তা আসলে পাত্তা পায়নি।”

 

আইপিএলে রেকর্ড নিয়ে আকাশ চোপড়ার মন্তব্যও যথেষ্ট যৌক্তিক। টুর্নামেন্টে নানা সময়ে তার দারুণ কিছু পারফরম্যান্স আছে বটে। ২০১২ আইপিএলের ফাইনালে ভালো বোলিংয়ের পর ব্যাট হাতে শেষ মুহূর্তে গুরুত্বপূর্ণ এক ছোট্ট ক্যামিও খেলেন। ২০১৪ আইপিএলের ফাইনালেও বেশ ভালো বোলিং করেন। কলকাতার ওই দুটি শিরোপা জয়ে আসরজুড়েই তার ছিল উল্লেখযোগ্য অবদান। তবে ২০১৪ আসর ছাড়া ব্যাটে-বলে দুর্দান্ত অলরাউন্ড মৌসুম তার কাটেনি কোনোবারই।

 

সব মিলিয়ে আইপিএল ৭১ ম্যাচে তার ফিফটি স্রেফ ২টি। মোট ৭৯৩ রান করতে পেরেছেন ১৯.৮২ গড় ও ১২৪.৪৮ স্ট্রাইক রেটে। অবশ্য ব্যাটিং অর্ডারে থিতু জায়গা তিনি পেয়েছেন কমই। তবে খুব প্রভাববিস্তারি ব্যাটসম্যান না হলে বিদেশের ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে থিতু জায়গা পাওয়াও তো কঠিন! বল হাতে ৭১ ম্যাচে তার উইকেট ৬৩টি। ওভারপ্রাত রান দিয়েছেন ৭.৪৩।

 

এই পরিসংখ্যান খারাপ নয় অবশ্যই, তবে খুব ভালো বা দারুণ কিছুও নয়। এই ৩৫ ছুঁইছুঁই বয়সে তিনি সেরা সময়কে পেছনে ফেলে এসেছেন, ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো এটাও ধরে নিতে পারে। একেক ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর ভাবনায় থাকতে পারে এই একেকটি কারণ। কিংবা অন্য কিছু। কেউ চোট পেলে বা অসুস্থ হলে, তার বদলি হিসেবে আইপিএল খেলার সুযোগ এখনও আছে। তবে নিলামে দল না পাওয়া যে সাকিবের জন্য ধাক্কা, এটা বলে দেওয়ায় ঝুঁকি খুব বেশি নেই। তার ক্যারিয়ারের ভবিষ্যৎ ভাবনায়ও নতুন নাড়া দিতে পারে এটি।

 

আবার, কে জানে, এটা তাকে তাতিয়েও দিতে পারে। অতীতে অনেকবারই সম্ভাব্য সব সমীকরণকে ভুল প্রমাণ করে তিনি ফিরে এসেছেন নতুনভাবে। চ্যাম্পিয়নদের জন্য উপক্ষো তো অনেক সময়ই জ্বলে ওঠার রসদ!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *