রোজায় সুস্থ থাকার ৭ উপায়

By | April 20, 2022

রমজানে সাহরি থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত না খেয়ে থাকার কারণে অনেকে ইফতারে একসঙ্গে বেশি খাবার খেয়ে থাকেন। রকমারি আয়োজনে স্বাস্থ্যকর ও পুষ্টিকর খাবারের পরিবর্তে বেশিরভাগই তৈলাক্ত ও মসলাজাতীয় মুখরোচক খাবার থাকে। যা রমজানে স্বাস্থ্যের ক্ষতি করে থাকে। কিন্তু এই সময় ইফতার ও সাহরিতে ভালো খাদ্য তালিকা দরকার।

 

রমজানে যদি খাদ্য তালিকায় পরিবর্তন না আনা হয় তাহলে শরীরে বিরূপ প্রভাব পড়ে। খাদ্যজনিত কারণে পেটের সমস্যাও হয়ে থাকে। যে কারণে অনেকে রমজানে অসুস্থ হয়ে পড়েন। এবার তাহলে রমজানে সুস্থ থাকার কয়েকটি উপায় সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক-

 

১. সাহরিতে খাদ্য তালিকায় দই, চিড়া, কলা অথবা মিক্সড সবজি, মাছ, মাংস, ডিম ও ভাত-রুটি খাওয়া যেতে পারে। এসব খাবার হজম শক্তি বৃদ্ধি করে থাকে।

২. ইফতারের আয়োজনে খেজুর, শরবত, বিভিন্ন রকমের ফল, ছোলা, সেদ্ধ ডিম ও সালাদ রাখার চেষ্টা করুন।

 

৩. কোমল পানীয় পানের অভ্যাস থাকলে তা এড়িয়ে চলা উচিত। কারণ, কোমল পানীয় তাৎক্ষণিক শরীরকে সতেজ করলেও পরে বারবার তৃষ্ণার্ত করবে রোজাদারকে।

৪. একদমই কিছু না খেয়ে ঘুমাবেন না রাতে। অল্প পরিমাণ হলেও খাবার খাওয়া উচিত। সবজি ও মাছ অথবা ঘুমানোর আগে ১ গ্লাস দুধ পান করা যেতে পারে।

 

৫. নিয়মিত নামাজ আদায় করুন। এতে শরীরের ব্যায়াম হবে এবং শরীরও সুস্থ থাকবে।

৬. ইফতার ও সাহরিতে ভাজাপোড়া, অতিরিক্ত তেল, মসলাজাতীয় কিংবা প্যাকেটজাত খাবার, ফাস্টফুড ইত্যাদি এড়িয়ে চলুন।

 

৭. ইফতার থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান করুন। তবে ফ্রিজের ঠান্ডা পানি সরাসরি পান করবেন না। এতে ঠান্ডাজনিত অসুখ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

এছাড়া কারো কোনো সমস্যা থাকলে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী খাদ্য তালিকা তৈরি করে নেয়া যেতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *